Read In
Whatsapp
Advertisement

কালীপুজোর আগেই আসছে নতুন Himalayan! রয়্যাল এনফিল্ডের নতুন বাইকে রয়েছে একাধিক চমক

দীপাবলি জমিয়ে তুলতে প্রস্তুত রয়্যাল এনফিল্ড। দেখে নিন নতুন বাইকের ফিচার্স এবং স্পেশিফিকেশন

Published By: Ritwik | Published On:
Advertisements

দু চাকার দুনিয়ায় লুক আর পারফরম্যান্সের কথা বললে প্রথমেই যে নামটা সবার মাথায় আসবে তা হল রয়্যাল এনফিল্ড। সংস্থাটি তার গ্রাহকদের চাহিদার কথা মাথায় রেখে নিত্যনতুন পরিবর্তন করে থাকে। এই যেমন খুব শীঘ্রই হিমালয়ান বাইকের একটি নতুন ভেরিয়েন্ট লঞ্চ করার চিন্তাভাবনা করছে সংস্থা। সূত্রের খবর, আগামী ৭ নভেম্বর এটি লঞ্চ হতে পারে।

Advertisements

এইদিন বাইকের ফিচারস, স্পেশিফিকেশন সহ একাধিক তথ্য আপনারা বিশদে জানতে পারবেন। বলা হচ্ছে, বাইকটির লুক নিয়ে নাকি নানান এক্সপেরিমেন্ট করেছে সংস্থাটি। যদিও বাইকের এই নতুন লুক নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া আসছে নেটিজনদের তরফ থেকে। কেউ কেউ বলছেন, নতুন লুকে ঝাক্কাস লাগছে তো কেউ বলছেন, আগের লুকটাই ভালো ছিল। পাশাপাশি পরিবর্তন করা হচ্ছে বাইকের ইঞ্জিনেও।

#Recommended
Royal Enfield Meteor 650 Vs Shotgun 650 : দুই বাইকেই রয়েছে একগুচ্ছ মি
Hero Mavrick Vs Harley-Davidson X440, কোন বাইক সেরা? দুই বাইকের মধ্যে
Honda বা TVS নয়, এবার বাজার কাঁপাচ্ছে Hero-র নতুন Xtreme 125R! কমিউটা
মাত্র 9 হাজারেই মিলবে নতুন দুই চাকা, হিরো দিচ্ছে সুপার অফার! ফায়দা নি
লাদাখ ট্যুরের স্বপ্নপূরণ করবে এই 6 বাইক, থাকছে অফুরন্ত শক্তি এবং দমদার
মাইলেজের সঙ্গে সেরা পারফরম্যান্স, হ্যাচব্যাকের বিভাগে ঝড় তুলবে মারুতি
রাস্তা খারাপ হলেও কুছ পরোয়া নেহি, Hero, Honda, TVS এবং KTM এর নতুন চা
লঞ্চ হয়ে গেল নতুন Hero Mavrick, 2 লাখেরও কম দামেই মিলছে শক্তিশালী 440
2 লক্ষ টাকা বাজেটে সেরা এই পাঁচ বাইক, দেখুন সম্পূর্ন তালিকা
শীঘ্রই লঞ্চ হচ্ছে Kawasaki Ninja 500, সম্ভাব্য দাম শুনলে চমকে উঠবেন আপ

ইঞ্জিনের কথা বললে, এতে আপনি পেয়ে যাবেন 452 cc লিকুইড কুলড ইঞ্জিন। এর ইঞ্জিন পারফরমেন্স বেশ চমৎকা র। নতুন বাইকটির মাইলেজ প্রতি লিটারে 40 কিমি। ইঞ্জিনটি 39 BHP শক্তি উৎপন্ন করতে সক্ষম। এতে পেয়ে যাবেন 6 স্পীড গিয়ারবক্স। এছাড়াও এতে পেয়ে যাবেন, একটি বড় ফুয়েল ট্যাঙ্ক। বাইকে থাকবে সম্পূর্ণ ডিজিটাল ইনস্ট্রুমেন্ট ক্লাস্টার সঙ্গে ব্লুটুথ কানেক্টিভিটি ও নেভিগেশন।

রয়্যাল এনফিল্ডের নতুন বাইকে থাকবে স্প্লিট সিট অপশন, স্প্লিট গ্র্যাব রেইল, আপসাইড ডাউন ফ্রন্ট ফর্ক এবং অফ-সেট মনোশক সাসপেনশন। সামনে ও পিছনের চাকায় পেয়ে যাবেন ডিস্ক ব্রেক সঙ্গে সুইচেবেল অ্যান্টি লক ব্রেকিং সিস্টেম, ট্রান্সপ্যারেন্ট উইন্ডস্ক্রিন। বাইকের ফুয়েল ট্যাঙ্ক, সাইড প্যানেল এবং রিয়ার ফেন্ডারে হিমালয়ান গ্রাফিক্স দেওয়া হয়েছে।

নয়া ডিজাইনের এই বাইকের দামের কথা বললে, জানিয়ে দিই এই নয়া মডেলটি মূলত প্রতিযোগিতা করবে KTM 390 Adventure, BMW G 310 GS এবং Yezdi Adventure-এর মতো বাইকের সঙ্গে। এমতাবস্থায় বাইকের প্রারম্ভিক দাম তো 2.70 লক্ষ (এক্স শোরুম) তো হওয়ারই কথা। এখন 3 লাখ টাকার রেঞ্জে 450 সিসির এমন অফরোডিং মোটরবাইক কতটা সাড়া ফেলবে তা তো সময়ই বলবে।