Read In
Whatsapp
Advertisement

KTM-র সাথে হবে জোর লড়াই! বাজার দখল করতে আসছে মেড ইন ইন্ডিয়া Aprilia RS 440, দাম কত?

খুব তাড়াতাড়ি মার্কেট কাঁপাতে আসছে মেড ইন ইন্ডিয়া Aprilia RS 440 । দেশীয় বাজারে KTM এর সঙ্গে জমবে লড়াই। লঞ্চের আগেই ফাঁস কেমন দাম ও ফিচার্স থাকবে

Published By: Ritwik | Published On:
Advertisements

একইসাথে স্টাইলিশ এবং স্পোর্টি লুকের কথা বললে Aprilia RS 440-র জুড়ি মেলা ভার। ইতিমধ্যেই দূর্দান্ত পারফরম্যান্সের এই বাইকটি নিয়ে শোরগোল পড়ে গিয়েছে সাধারণ মানুষের মধ্যে। আর তাছাড়া বাইকটির যা ফিচার্স তাতে অনায়াসেই এটি KTM RC 390 মোটরসাইকেলকে চ্যালেঞ্জ জানাতে সক্ষম। সেটাও একটা আলোচনার বিষয় বটে বৈকি!

Advertisements

সূত্রের খবর, আগামী 7 সেপ্টেম্বর তারিখে লঞ্চ হবে Aprilia-এর নতুন মোটরবাইক। আর ঐ একই দিনে মুক্তি পাবে শাহরুখের নতুন ছবি ‘জওয়ান’। তাই বাইকপ্রেমী আর শাহরুখ প্রেমীদের জন্য দিনটি বিশেষ তো বটেই। Aprilia RS 440 বাইকটি মূল Aprilia RS 660 সুপারস্পোর্ট মডেলকে অনুসরণ করেই তৈরি করা হয়েছে।

#Recommended
নতুন Bajaj Pulsar N160 বাকিদের থেকে এতটা এগিয়ে! কম বাজেটে কামাল করে দ
Bajaj Pulsar N150: 130 এর টপ স্পিড সহ দারুণ মাইলেজ, শীঘ্রই নতুন Pulsar
পেট্রোল নয়, নতুন জ্বালানিতে চলবে বাইক! পরিবেশ রক্ষার স্বার্থে বড় পদক
Aprilia RS 457 : ভারতে তৈরি স্পোর্টস বাইক রপ্তানী হচ্ছে ইংল্যান্ডে, দু
Honda CB350 : Classic ছেড়ে কিনুন 24 হাজার টাকা সস্তা এই বাইক, মিলবে উ
Hero Mavrick Vs Harley-Davidson X440, কোন বাইক সেরা? দুই বাইকের মধ্যে
Honda বা TVS নয়, এবার বাজার কাঁপাচ্ছে Hero-র নতুন Xtreme 125R! কমিউটা
মাত্র 9 হাজারেই মিলবে নতুন দুই চাকা, হিরো দিচ্ছে সুপার অফার! ফায়দা নি
লাদাখ ট্যুরের স্বপ্নপূরণ করবে এই 6 বাইক, থাকছে অফুরন্ত শক্তি এবং দমদার
রাস্তা খারাপ হলেও কুছ পরোয়া নেহি, Hero, Honda, TVS এবং KTM এর নতুন চা

এতে রয়েছে, 440 সিসি ইঞ্জিন যা 45 থেকে 50 হর্সপাওয়ার শক্তি তৈরি করতে সক্ষম। KTM RC 390 তো বটেই পাশাপাশি, Yamaha R3, Kawasaki Ninja এর মত বাইককেও ওপেন চ্যালেঞ্জ জানাবে এই নতুন বাইক। এতে থাকবে USD (আপসাইড ডাউন) ফ্রন্ট ফর্ক সাসপেনশন। এবং ব্রেকিংয়ের জন্য ডুয়াল চ্যানেল এবিএস দেওয়ার কথা চিন্তাভাবনা করছে সংস্থাটি।

বিভিন্ন টেক মিডিয়া থেকে পাওয়া খবর অনুযায়ী, কোম্পানি তাদের এই নতুন মডেলটিতে কর্নারিং এবিএস, ট্র্যাকশন কন্ট্রোল, রাইডিং মোড, স্লিপার অ্যান্ড অ্যাসিস্ট ক্লাচ-র মত আকর্ষণীয় ফিচার্সগুলি যোগ করার কথা ভাবছে। এই সমস্ত ফিচার্স যদি সত্যিই যোগ করা হয় তাহলে বাজারে RS 440 কে টেক্কা দেওয়ার মত ক্ষমতা খুব কম বাইকেরই থাকবে।

এছাড়াও বাইকটিতে দেওয়া হবে ডিজিটাল ইনস্ট্রুমেন্ট ক্লাস্টার, ব্লুটুথ কানেকশন, USB চার্জিং পোর্ট, ফুল LED সেটআপ-র মত সুবিধা‌। এদিকে দামের কথা বললে, সংস্থাটি এখনই বাইকের দাম রিভিল করেনি যদিও তবে, আনুমানিক 4 থেকে 4.5 লাখ টাকার মধ্যে থাকতে পারে। আগামী 7 সেপ্টেম্বর বাইকটির আনুষ্ঠানিক ঘোষণা হওয়ার সময়ই প্রকৃত দাম রিভিল হবে বলে ধারণা সবার।