Read In
Whatsapp
Advertisement

টপ পারফর্মার Maruti Suzuki, এই গাড়ির সামনে টিকতে পারবে না কেও! খুঁটিনাটি জেনে কিনে নিন শীঘ্রই

মারুতির এই গাড়ির সামনা সামনি নেই কোনো গাড়ি, রেকর্ড বিক্রি জুলাই মাসে 

Published By: Ritwik | Published On:
Advertisements

ভারতের বাজার ধীরে ধীরে SUV সেগমেন্ট জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। কিন্তু তারমধ্যেও অপেক্ষাকৃত ছোট এবং কমদামী হ্যাচব্যাক গাড়িগুলোর রেকর্ড বিক্রি হয়েছে। মধ্যবিত্ত ভারতীয়র এখনো পছন্দের সেগমেন্ট কমপ্যাক্ট গাড়ি। আর সেই সেগমেন্টের লিডার মারুতি সুজুকি। আরো বিশদে বললে মারুতি সুজুকি সুইফ্ট।

Advertisements

ভারতের বাজারে রেকর্ড সংখ্যায় বিক্রি হয়েছে এই Swift গাড়িটি। দমদার পারফর্ম্যান্স আর বিলাসবহুল ইন্টেরিয়র গাড়িটিকে সেগমেন্টের লিডার বানিয়েছে। 1.2 লিটারের ডুয়ালজেট পেট্রোল ইঞ্জিন সমেত মাত্র 6 থেকে 9.03 লক্ষ টাকার এক্স-শোরুম দামের কারণে গাড়িটির সামনে পাত্তা পায়নি কেও। বিক্রীর নিরীখে শীর্ষ পাঁচের মধ্যে প্রথম স্থানে Maruti Swift।

গত এক মাসের পরিসংখ্যান অনুযায়ী মোট 17,896 ইউনিট Swift বিক্রি হয়েছে ভারতের বাজারে। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে মারুতি সুজুকির নেক্সা ডিলারশিপের অধীনে আসা Baleno বিক্রি হয়েছে 16,725 টি। তৃতীয় স্থানেও মারুতি সুজুকিরই Brezza, চতুর্থ সাথে Ertiga এবং পঞ্চম স্থানে হুন্ডাই এর ক্রেটা গাড়িটি রয়েছে। শীর্ষ 5 এর মধ্যে চারটিই মারুতি সুজুকির।

শীর্ষ স্থানে থাকা Swift অবশ্য বিক্রির নিরিখে বাকিদের থেকে বহুখানি এগিয়ে। CNG এবং ডুয়ালজেট পেট্রোল সহ মোট দুটি ভেরিয়েন্টে Swift এর একগুচ্ছ ভার্সন লঞ্চ করেছে মারুতি সুজুকি। 90PS শক্তি এবং 113 Nm টর্ক থাকার কারণে ইঞ্জিনের ক্ষমতাও দুর্দান্ত। এরসাথে বড় বুটস্পেস এবং 22 কিমি মাইলেজ গাড়িটিকে সেগমেন্ট লিডার হয়ে উঠতে সাহায্য করেছে। 

একনজরে জুলাই মাসে বিক্রি হওয়ায় শীর্ষ 5 গাড়ির তালিকা :- 

গাড়ি মোট বিক্রী হওয়া গাড়ির সংখ্যা
Maruti Swift17,896
Maruti Baleno16,725
Maruti Brezza16,543
Maruti Ertiga14,352
Hyundai Creta14,062

বাজারে অবশ্য একগুচ্ছ গাড়ি রয়েছে Maruti Suzuki Swift এর প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে। এর মধ্যে রয়েছে Hyundai Grand i10 Nios এবং Renault Triber, কিন্তু সেলস রেকর্ড জানাচ্ছে Swift এর ধারেকাছেও নেই তারা। অন্তত পরিসংখ্যান তাই বলছে। এছাড়া এই সেগমেন্টে মারুতি সুজুকির রেকর্ড এখনো ক্ষুণ্ন। শীর্ষ পাঁচের চারটি গাড়িই তাদের। বাকি কোম্পানিকে এই জায়গায় পৌঁছাতে এখনো অনেকখানি পরিশ্রম করতে হবে।