whatsapp channel
 Bike News  Car News EV Updates Auto Tips Auto Motive IndustryCeleb's Collection
Advertisement

ব্যপক সস্তা হয়ে গেল MG Comet এবং Tata Tiago EV, থাকছে 1.5 লক্ষ টাকার বাম্পার ডিসকাউন্ট

জ্বালানি চালিত গাড়ির জায়গায় বাজারে আসে নতুন বৈদ্যুতিক গাড়ি। যদিও নতুন EV এর দাম বৈদ্যুতিক গাড়িগুলোর থেকে কিছুটা বেশীই। কিন্তু এবার প্রায় সমান সমান দাম হয়ে গিয়েছে EV এবং জ্বালানি…

Ritwik Patra

Ritwik Patra

Advertisements

জ্বালানি চালিত গাড়ির জায়গায় বাজারে আসে নতুন বৈদ্যুতিক গাড়ি। যদিও নতুন EV এর দাম বৈদ্যুতিক গাড়িগুলোর থেকে কিছুটা বেশীই। কিন্তু এবার প্রায় সমান সমান দাম হয়ে গিয়েছে EV এবং জ্বালানি চালিত গাড়ির। বাজেট অপশনের দুই সেরা গাড়ি MG Comet এবং Tata Tiago ইভির দাম পড়ে যাওয়ায় গ্রাহকদের বেশ সুবিধা হয়েছে। একেবারে 1.2 লক্ষ টাকার ছাড়ের সাথে কেনা যাবে দুই গাড়ি। Tata Tiago Vs Mg Comet

whatsapp logo
Advertisements

উল্লেখ্য যে, বৈদ্যুতিক গাড়ির বাজারে বেশ সাড়া ফেলেছে MG Comet এবং Tata Tiago, 10 লক্ষের কম বাজেটে সেরা অপশন এই দুটি। তাই আপনিও যদি বৈদ্যুতিক গাড়ি কেনার কথা ভাবছেন তাহলে এটাই সুবর্ন সুযোগ। আসলে ব্যাটারির দাম কমার কারণেই এই অফার পাওয়া যাচ্ছে কোম্পানির তরফে। তাহলে চলুন দেখে নেওয়া যাক কেমন কী অফার পাওয়া যাচ্ছে দুই গাড়িতে।

Advertisements

MG Comet EV
MG Comet বর্তমানে ভারতের সবচেয়ে সস্তা ইলেকট্রিক গাড়ি। 7.98 লক্ষ টাকায় গাড়িটি লঞ্চ হয় বাজারে। কিন্তু এবার এই গাড়ির দাম কমেছে 99,000 টাকা। নতুন ছাড়ের সাথে Comet পাওয়া যাচ্ছে 6.99 লক্ষ টাকা। টপ মডে লটির দাম রয়েছে 8.58 লক্ষ টাকা। Mg Comet Ev 3 Sixteen Nine

MG Comet গাড়িতে 230 কিমি মাইলেজ পাওয়া যায়। রয়েছে বড় টাচস্ক্রিন, এয়ার কন্ডিশনিং, ব্লুটুথ কানেক্টিভিটি, USB চার্জিং পোর্ট-সহ একাধিক ফিচারস। গাড়িটি ফুল চার্জ হতে সময় নেয় 7 ঘণ্টা। উল্লেখ্য যে, Comet ছাড়া MG তাদের ZS EV এর

Tata Tiago EV
টাটা মোটরসের Tiago গাড়িটিও বিপুল বিক্রি হয়েছে বিগত কিছু সময়ে। বর্তমানে এই গাড়িটির দাম রয়েছে 7.99 লক্ষ টাকা। এর আগে গাড়িটির দাম ছিল 8.49 লক্ষ টাকা। অর্থাৎ বেশ মোটা অংকের ছাড় রয়েছে Tiago EV তে। Tiago Exterior Right Front Three Quarter 9

Tiago তে দুইটি ব্যাটারি প্যাক রয়েছে 19.2 kWh এবং 24 kWh। এই দুই ব্যাটারি প্যাকের মাইলেজ 250 কিমি এবং 315 কিমি। ফাস্ট চার্জারের সাহায্যে মাত্র 1 ঘণ্টাতেই ফুল চার্জ হয়ে যায়। গাড়িতে 7 ইঞ্চি টাচস্ক্রিন, ব্লুটুথ কানেক্টিভিটি, স্পিড এলার্ট, ক্রুজ কন্ট্রোল, টায়ার প্রেশার মনিটরিং সিস্টেম ইত্যাদির মত ফিচারস দেখতে পাওয়া যায়।

About Author
Ritwik Patra
Ritwik Patra

Writes about cars (loves them!). Learns lots of things and tells stories about them too. Been doing it for a few years now.

SHARE