whatsapp channel
 Bike News  Car News EV Updates Auto Tips Auto Motive IndustryCeleb's Collection
Advertisement

পেট্রোলের চিন্তা নেই! জল ভরলেই ছুটবে বাইক, মধ্যবিত্তদের বাঁচাবে Yamaha XT500 H2O

Yamaha XT500 H2O: 18 বছর বয়স পেরোলেই মোটরসাইকেল কিনে নিচ্ছেন প্রতিটি যুবক। বর্তমান সময়ে দাঁড়িয়ে মোটরসাইকেল কেনা ভীষণ সহজ। একবারে খরচ করতে হয় না মোটা অঙ্কের টাকা। বরং প্রত্যেক মাসে…

Additiya Banerjee

Additiya Banerjee

Advertisements

Yamaha XT500 H2O: 18 বছর বয়স পেরোলেই মোটরসাইকেল কিনে নিচ্ছেন প্রতিটি যুবক। বর্তমান সময়ে দাঁড়িয়ে মোটরসাইকেল কেনা ভীষণ সহজ। একবারে খরচ করতে হয় না মোটা অঙ্কের টাকা। বরং প্রত্যেক মাসে অল্প সামান্য টাকা দিয়েই বাড়িতে নিয়ে আসা যায় পছন্দের মোটরসাইকেল। তবে কেবলমাত্র মোটরসাইকেল কিনলেই তো আর চলবে না। সঙ্গে প্রয়োজন পেট্রোল খরচের টাকাটা। তবে এবার আর সেই বিষয় নিয়ে করতে হবে না চিন্তা। দুর্দান্ত সুযোগ নিয়ে হাজির জনপ্রিয় মোটরসাইকেল নির্মাণ সংস্থা Yamaha। খুব শীঘ্রই ভারতের বাজারে লঞ্চ হতে চলেছে Yamaha XT500 H2O

whatsapp logo
Advertisements

Yamaha New Water Bike

জ্বালানির জ্বালায় অতিষ্ঠ আমজনতা। পেট্রোল, ডিজেল সহ খনিজ তেলের ভাণ্ডার ক্রমশ ফুরিয়ে আসছে। আর সে কারণে হু হু করে দাম বেড়ে চলেছে পেট্রোল-ডিজেলের। এই সমস্যার হাত থেকে মধ্যবিত্তকে বাঁচাতে বিকল্প জ্বালানির পথ খুঁজে বেড়াচ্ছেন বিজ্ঞানীরা। আর এই পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে Maxime Lefevre দুর্দান্ত একটি সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে। খুব শীঘ্রই তারা এমন একটি বাইক লঞ্চ করতে চলেছে যেটি পেট্রল বা ডিজেল নয় বরং ছুটবে জলের সাহায্যে। হ্যাঁ অবিশ্বাস্য মনে হলেও খুব শীঘ্রই এটি হতে চলেছে সত্য। সম্প্রতি Maxime Lefevre এর তরফে প্রকাশ্যে আনা হয়েছে Yamaha XT 500 H2O র ছবি।

Advertisements

Yamaha XT500 H2O Details

বিভিন্ন রিপোর্ট থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী, এই বাইকটি তৈরি করার জন্য Yamaha র সঙ্গে হাত মিলিয়েছে Maxime Lefevre। 2016 সালে Yamaha র সঙ্গে এই বাইকটির প্রথম স্কেচ শেয়ার করেছিল Maxime Lefevre। আর তারপর থেকেই শুরু হয় কাজ। বাইকের ইঞ্জিন ফ্রেম ডেভেলপমেন্ট থেকে ডিজাইন সহ অন্যান্য আনুষঙ্গিক কাজকর্মের কাজ ইতিমধ্যেই শুরু করে দিয়েছে Yamaha। তবে এতদিনে প্রকাশ্যে এলো এই বাইকের ছবি।

Yamaha XT500 H2O Specification

Yamaha XT500 H2O বাইকে দেখতে অনেকটাই Yamaha XT500 এর মত। 1975-1981 পর্যন্ত ভারতের বাজারে ব্যাপক বিকৃত হয়েছিল এই বাইক। লাইট ওয়েট হওয়ার কারণে খুব সহজেই যে কোন অঞ্চলে চলতে সক্ষম ছিল এই বাইকটি। বাইকে ছিল 499 সিসি ফোর্স টোক সিঙ্গেল সিলিন্ডার ইঞ্জিন। 160 কিলোমিটার পর্যন্ত প্রতি ঘন্টায় ছুটতে পারতো এই বাইক।

Yamaha XT500 H2O বাইকে থাকছে জলের পাম্প যা জলকে চক্রাকারে ঘোরাবে এবং ইঞ্জিনকে প্রোপারশন প্রদান করবে। গাড়ির যে ছবি প্রকাশ্যে এসেছে সেখানে দেখা গিয়েছে হোয়াইট শেডেড টায়ার। ওয়াটার পাওয়ার মোটরবাইকের মাধ্যমে পরিবেশ দূষণের সম্ভাবনা যেমন থাকছে না ঠিক তেমনই জ্বালানির নিয়েও থাকছে না চিন্তা। এমনকি ইলেকট্রিক বাইকের তুলনায় অনেক কম খরচ হবে এই বাইকে।

About Author
Additiya Banerjee
Additiya Banerjee

I'm Additiya, I love taking complex ideas and turning them into clear, interesting reads. I've been at it for a few years now, and I'm always learning and growing.

SHARE